দেশের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি দামে বিক্রি হল ‘বস’

ঈদুল আজহার আর মাত্র পাঁচদিন বাকি। রাজধানীতে জমে উঠেছে পশুর হাট। বাজারে বেচা-কেনা না থাকলেও দেশের রেকর্ড গড়া দামে বিক্রি হয়েছে ‘বস’ নামের গরুটি।

এটি বিক্রি হয়েছে ৩৭ লাখ টাকায়। মালিকের দাবি বাংলাদেশের ইতিহাসে এর চেয়ে বেশি দামে আর গরু বিক্রি হয়নি। এটি রেকর্ড!

এবার ঈদের সবচেয়ে বেশি দামের পশু ‘বস’ গরু ক্রয় করেছেন ইস’লাম গার্মেন্টসের মালিক শাকির আহমেদ। তিনি ঢাকা উত্তর সিটি কপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইস’লামের ভাতিজা। শাকির আহমেদ এনটিভি অনলাইনকে বলেন, “আল্লাহ রাস্তায় সর্বোচ্চ উৎসর্গ করার জন্য এ ‘বস’ গরুটি কিনেছি। সবাই দোয়া করবেন।”

মোহাম্ম’দপুর বেড়িবাঁধ এলাকার সাবিক অ্যাগ্রো খামা’রের মালিক ইম’রান হোসাইন এই গরুর মালিক। তিনি বলেন, “আমা’র খামা’রে মোট এক হাজার ৪০০ গরু ছিল। তারমধ্যে ‘বস’ ছিল সবচেয়ে বড় জাতের গরু। এতে মাংস হবে এক হাজার ৪০০ কেজি। এ ছাড়া তার খামা’রে আরো বড় ধরনের গরু বিক্রি হয়েছে। তা হলো- মেসি ২৭ লাখ টাকা, টাইটানিক ১৭ লাখ ৫০ হাজার টাকা।’

বিক্রির অ’পেক্ষায় আছে ‘টাইগার’; যার মূল্য হাঁকা হচ্ছে ২৫ লাখ টাকা। ‘রোজো’র মূল্য হাঁকা হচ্ছে ৩০ লাখ টাকা। এ ছাড়া বিভিন্ন দামের এক হাজার গরু বিক্রি করেছেন ইম’রান হোসাইন।

ইম’রান হোসাইন আরো বলেন, ‘এবারের ঈদের জন্য আমা’র খামা’রে এক হাজার ৪০০ গরু প্রস্তুত করেছি। তন্মধ্যে এক হাজার গরু ইতিমধ্যে বিক্রি হয়ে গেছে। এবারে একটু ব্যতিক্রম দেখলাম, তা হলো ক্রেতারা আগেই গরু কিনে নিচ্ছে। আমা’র গরু বাজারে নিতে হচ্ছে না। বরং খামা’রে সব গরু বিক্রি করে ফেলছি।’

আজ বুধবার গাবতলী পশুর হাটে গিয়ে দেখা যায়, গাবতলী পশুর হাটে সবচেয়ে বেশি গরু উঠেছে। তবে এখন পর্যন্ত তেমন বিক্রি হচ্ছে না। ক্রেতার তুলনায় দেখার লোকই বেশি। হাটের মাঝখানে রাখা হয়েছে বড় বড় গরু। এর মধ্যে ঝিনাইদহ থেকে এসেছে ‘যুবরাজ’ ও ‘রবি’। এ দুটি গরু দেখতে গাবতলীর হাটে ভিড় জমাচ্ছে শত শত মানুষ। দেখতে আসা সাধারণ মানুষ গরু দেখে বিভিন্ন মন্তব্য করছে।

অনেক কিশোর বিভিন্নভাবে দাঁড়িয়ে এসব গরুর সঙ্গে মুঠোফোনে সেলফি তুলছে। কেউবা গরুটিকে একবার ধরে দেখে মনের ইচ্ছে পূরণ করছে।

টাইগারের’ দাম হাঁকছেন ৩ লাখ টাকা!

কয়েক বছর আগেও লাখ টাকার গরু কিনলে মানুষ দেখতে আসত। আর এখন একটি ছাগলের দামই হাঁকা হচ্ছে তিন লাখ টাকা! ঢাকার দোহার উপজে’লার সুতারপাড়া গ্রামে দেখা মিলল ছাগলটির।

ছাগলটির মালিক মো. অলিউল্লাহ। শখ করে তিনি ছাগলটির নাম দিয়েছেন ‘টাইগার’। তিনি ছাগলটির দাম হাঁকাচ্ছেন তিন লাখ টাকা। ছাগলটি বিক্রির জন্য গাবতলী পশুর হাটে নেবেন বলে জানালেন তিনি।

আজ মঙ্গলবার অলিউল্লাহর বাসায় গিয়ে দেখা যায়, বেশ বড় আকারের ছাগলটি দেখতে তাঁর বাসায় ভিড় জমাচ্ছেন উৎসুক মানুষ। আকর্ষণীয় ছাগলটি দেখতে সোনালি রঙের।

অলিউল্লাহ বলেন, তিন বছর ধরে ছাগলটি পুষছেন। তাঁর দাবি, ছাগলটির উচ্চতা চার ফুটের ওপরে। ওজন প্রায় ১২৮ কেজি।অলিউল্লাহ বলেন, ‘গত বছর কোরবানির পশুর হাটে কয়েকজন ক্রেতা ছাগলটির দাম লাখ টাকার ওপরে বলেছিলেন।

কিন্তু বিক্রি করি নাই। ছাগলটি পুষতে আমাকে প্রচুর খরচ করতে হয়েছে। প্রতিদিন আধা কেজি আপেল ও মাল্টা ছাড়াও উন্নত মানের খাবার দিতে হয়েছে।’ এবার ছাগলটির দাম তিন লাখ টাকা হলে বিক্রি করবেন বলে জানালেন তিনি।

অলিউল্লাহ জানালেন, আগামী বৃহস্পতিবার গাবতলীর হাটে বিক্রির উদ্দেশ্যে নিয়ে যাবেন ছাগলটিকে। আশা করছেন, এবার গাবতলী হাটের সেরা ছাগল হবে ‘টাইগার’। টাইগারকে প্রত্যাশামতো দামে বিক্রি করে বাড়ি ফিরতে পারবেন বলে আশাবাদী অলিউল্লাহ।

About redianbd

Check Also

ব্রেকিং : এইমাত্র মোদির আগমন ঠেকাতে জুতা হাতে বিমানবন্দরে থাকবে হেফাজত

দিল্লিতে মুসলিম হ`ত্যা, নি`র্যাতনের প্রতিবাদে মুজিববর্ষে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশে আগমন প্রতিহত করতে ফেনীতে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.